৫ ফেব, ২০২০

এ বছর সীমান্ত হত্যা অনেক বেড়ে গেছে: আব্দুল মোমেন



এ বছর সীমান্ত হত্যা অনেক বেড়ে গেছে বলে জানিয়েছেন, পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন। এটা খুবই দুঃখজনক ঘটনা।
সীমান্ত হত্যা বেড়ে যাওয়ার বিষয়টি ভারতের কাছে তুলছেন কি না, সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের উত্তরে এ কথা বলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী। আজ রোববার নিজ দপ্তরে তিনি সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন।
সীমান্তে হত্যা বেড়ে যাওয়ার বিষয়টি ভারতের কাছে তুলে ধরার ব্যাপারে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘এ ব্যাপারে আমরা অত্যন্ত সজাগ আছি। যখনই দুর্ঘটনা ঘটে, তখনই ভারতীয় হাইকমিশনারকে ডেকে এনে বলি, এগুলো কেন হচ্ছে?’
এ কে আব্দুল মোমেন আরও বলেন, ‘ভারত সরকার সব সময় আমাদের প্রতিশ্রুতি দিয়ে আসছে, সীমান্তে একজনেরও প্রাণহানি ঘটবে না। তবু ঘটছে। আমাদের মধ্যে চুক্তি আছে, সীমান্তে যাতে কোনো ধরনের প্রাণঘাতী অস্ত্র ব্যবহার করা না হয়। তারপরও হচ্ছে। এ নিয়ে তাদের নানা রকম ব্যাখ্যা আছে।’
পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘ভারতীয়রা বলে থাকে, আমাদের লোকজন তাদের সীমানার অনেক ভেতরে চলে যান। তারা সীমান্তে কোনো লোক হত্যা করে না।’
আব্দুল মোমেন আরও বলেন, ‘সেদিন ভারতীয় হাইকমিশনারকে ডেকে এনে বলেছি, বাংলাদেশ-ভারত সম্পর্ক অত্যন্ত উন্নত। এর মধ্যে এগুলো হবে কেন? এগুলো খুবই লজ্জাজনক। আমরা চাই, সীমান্তে যাতে একজনও প্রাণ না হারান।’
পররাষ্ট্রমন্ত্রী জানান, দুই দেশের সীমান্তরক্ষী বাহিনীর বৈঠকে সীমান্ত হত্যার বিষয়টি তুলে ধরেছে বাংলাদেশ।
ভারতীয় হাইকমিশনারকে তলব প্রসঙ্গে আব্দুল মোমেন বলেন, ‘আমরা বাহবা নিতে চাই না। আমরা বাহবা নিয়ে বলতে চাই না, ভারতের হাইকমিশনারকে ডেকে এনেছি। আমরা শান্তিপূর্ণ সমাধান চাই। আমরা চাই, একজন বাংলাদেশি যেন প্রাণ না হারান।’


SHARE THIS

Author:

Etiam at libero iaculis, mollis justo non, blandit augue. Vestibulum sit amet sodales est, a lacinia ex. Suspendisse vel enim sagittis, volutpat sem eget, condimentum sem.

0 coment rios: