২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৭

যশোরে পুরোদমে চলছে দুর্গা পূজার প্রস্তুতি

যশোরে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গা পূজার প্রস্তুতি চলছে পুরোদমে। মা দুর্গাকে সাজাতে রাত দিন কাজ করছেন প্রতিমা তৈরির কারিগররা। এখন চলছে রঙের কাজ।

এছাড়া নির্বিঘ্নে উৎসব সম্পন্ন করতে মন্দির ভিত্তিক নিরাপত্তা ব্যবস্থার পাশাপাশি নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা ব্যবস্থা গড়ে তোলার প্রস্তুতি নিয়েছে প্রশাসন।

সামনেই হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের সবচে বড় ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজা। এ উৎসবকে আকর্ষণীয় করতে যশোর শহর ও বিভিন্ন উপজেলার মণ্ডপে মণ্ডপে চলছে প্রতিমা তৈরির কাজ। দীর্ঘ ৪-৫ মাসের পরিশ্রমে গড়া প্রতিমা তৈরির শেষ পর্যায়ে এখন দিন-রাত মিলে চলছে রঙের প্রলেপ ও অঙ্গসজ্জার কাজ। দেবীর মর্তে আগমনের আগেই শেষ করতে হবে এ কাজ। তাই কাজের চাপে দম ফেলার ফুসরত নেই কারিগরদের।

কারিগররা বলেন, 'রঙের কাজ আপাতত শেষ। এখন চোখের কাজ করছি। এখন আমাদের প্রচুর কাজের চাপ। আমরা রাত ১-২ টা পর্যন্ত কাজ করছি। ঠাকুরকে গয়নাগাটি, চুল এগুলো পড়ানো শেষ হলেই কাজ শেষ।'

এদিকে মণ্ডপগুলোর নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে স্থানীয়ভাবে গঠিত কমিটিতে সব ধর্মের লোক অন্তর্ভুক্ত করায় স্বস্তির কথা জানালেন বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ যশোর শাখার সাধারণ সম্পাদক দীপংকর দাস রতন।

তিনি বলেন, 'যশোর জেলায় ৬৪৪টি মন্দিরেই সব ধরণের মানুষকে নিয়ে নিরাপত্তা বলয় তৈরি করা হয়েছে। আমরা বিশ্বাস করি প্রতিবারের মত এবারেও বাংলাদেশে নির্বিঘ্নে শারদীয় দুর্গা উৎসব সম্পন্ন হবে।'

এছাড়া দুর্গা উৎসবকে শান্তিপূর্ণভাবে সমাপ্ত করতে প্রশাসনের পক্ষ থেকে নিচ্ছিদ্র নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে বলে জানালেন যশোরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সালাউদ্দিন শিকদার।

এ বছর যশোরের ৮টি উপজেলায় ৬শ’ ৪৪টি মন্দির ও মণ্ডপে দুর্গাপূজা অনুষ্ঠিত হবে। এবার দেবী দুর্গা তার ভক্তদের মাঝে আসবেন নৌকায় চড়ে, ফিরবেন ঘোড়ায়।

SHARE THIS

Author:

Etiam at libero iaculis, mollis justo non, blandit augue. Vestibulum sit amet sodales est, a lacinia ex. Suspendisse vel enim sagittis, volutpat sem eget, condimentum sem.

0 coment rios: