১২ সেপ্টেম্বর, ২০১৭

যশোরে শুরু হচ্ছে ভোটার তালিকার ছবি তোলা ও নিবন্ধন


জেলায় ভোটার তালিকা হালনাগাদ কার্যক্রমের তথ্য সংগ্রহ কার্যক্রম শেষ হয়েছে। ১৭ সেপ্টেম্বর থেকে সদর উপজেলায় শুরু হচ্ছে ছবি তোলা ও ভোটার নিবন্ধনের কার্যক্রম। ২০ অক্টোবর পর্যন্ত উপজেলার ২২টি স্থানে পর্যায়ক্রমে এ কার্যক্রম চলবে বলে সংশ্লিষ্ট সুত্রে জানা গেছে।

এছাড়া, যারা তথ্য সংগ্রহের সময় অনুপস্থিত ছিলেন তারাও ২১ ও ২২ অক্টোবর মুসলিম একাডেমীতে উপস্থিত হয়ে সকাল ৯টা থেকে বেলা সাড়ে তিনটার মধ্যে তথ্য দিয়ে ভোটার রেজিস্ট্রিশনে অংশ নিতে পারবেন। ৩০ সেপ্টেম্বর বিজয়া দশমী এবং ১ অক্টোবর পবিত্র আশুরার দিন নিবন্ধন কার্যক্রম বন্ধ থাকবে।

সদর উপজেলা নির্বাচন অফিসার আব্দুর রশিদ জানান, ১৭ থেকে ১৯ সেপ্টেম্বর হৈবতপুর ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে, ২০ ও ২১ সেপ্টেম্বর লেবুতলা , ২২ ও ২৩ সেপ্টেম্বর ইছালী ২৪ থেকে ২৭ সেপ্টেম্বর নওয়াপাড়া, ২৭ সেপ্টেম্বর উপশহর, ২৮ ও ২৯ সেপ্টেম্বর কাশিমপুর এবং চুড়ামনকাঠি ইউনিয়ন, ৩ থেকে ৬ অক্টোবর দেয়াড়া, ৩ থেকে ৫ অক্টোবর আরবপুর, ৬ থেকে ৮ অক্টোবর চাঁচড়া, ৭ থেকে ৯ অক্টোবর রামনগর, ৯ থেকে ১২ অক্টোবর ফতেপুর, ১০ ও ১১ অক্টোবর কচুয়া, ১২ ও ১৩ অক্টোবর নরেন্দ্রপুর, ১৩ ও ১৪ অক্টোবর বসুন্দিয়া ইউনিয়ন, ১৪ অক্টোবর দাউদ পাবলিক স্কুল কেন্দ্রে ক্যান্টনমেন্টের বাসিন্দারা ভোটার নিবন্ধন করাবেন। এছাড়াও যশোর পৌরসভা এলাকার জন্যে একটি মাত্র কেন্দ্র মুসলিম একাডেমীতে ১ নম্বর ওয়ার্ডের জন্যে ১৫ অক্টোবর, ২ ও ৩ নম্বর ওয়ার্ড ১৬ অক্টোবর, ৪ ও ৬ নম্বর ওয়ার্ড ১৭ অক্টোবর, ৫ নম্বর ওয়ার্ড ১৮ অক্টোবর, ৭ ও ৮ নম্বর ওয়ার্ড ১৯ এবং ৯ নম্বর ওয়ার্ড ২০ অক্টোবর নিবন্ধন করা হবে।

উল্লেখ্য, যশোরে ভোটার তালিকা হালনাগাদ কাযক্রমে ৮ উপজেলায় ৫২ হাজার ১৪৯ জন আবেদন ফরম পূরণ করেছেন। অনুপস্থিত ছিলেন ১৩ হাজার ৪৮৩ জন।

২৫ জুলাই থেকে ৯ আগস্ট জেলায় একযোগে বাড়ি বাড়ি গিয়ে তথ্য সংগ্রহ করা হয়। ১১ শ ৩৪ জন তথ্যসংগ্রহকারী এবং ২৩৭ জন সুপারভাইজার এ কাজে অংশ নেন। এসময় মৃত্যুজনিত কারণে ৩৯ হাজার ৭৭ জনকে তালিকা থেকে বাদ দেয়া হয়েছে। জেলায় বিদ্যমান ভোটারের সংখ্যা ২০ লাখ ৫৩ হাজার ১৭০ জন। নতুন অন্তর্ভুক্ত এবং মৃতদের বাদ দিয়ে এর সংখ্যা দাঁড়াবে ২১ লাখ ১৮ হাজার ৮০৫ জন।

SHARE THIS

Author:

Etiam at libero iaculis, mollis justo non, blandit augue. Vestibulum sit amet sodales est, a lacinia ex. Suspendisse vel enim sagittis, volutpat sem eget, condimentum sem.

0 coment rios: