১০ এপ্রিল, ২০১৭

'নতুন মূসক আইন বাস্তবায়নে ব্যবসায়ীদের সহযোগিতা দরকার'








নতুন মূল্য সংযোজন কর (মূসক) আইন বাস্তবায়নে ব্যবসায়ীদের সহযোগিতা চেয়েছেন জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) চেয়ারম্যান মো. নজিবুর রহমান।

তিনি বলেন, ‘আগামী ১ জুলাই থেকে নতুন মূসক আইন বাস্তবায়ন হবে।এর কাউন্টডাউন চলছে। ব্যবসায়ীদের বিশেষ অনুরোধের প্রেক্ষিতে গতবছর প্রধানমন্ত্রী এই আইন বাস্তবায়ন ১ বছর পিছিয়ে দেন। তবে এবার ঘোষিত সময় মেনেই এটি বাস্তবায়ন হবে, এর জন্য ব্যবসায়ীদের সহযোগিতা দরকার।’

রোববার রাজধানীর সেগুনবাগিচায় এনবিআর কার্যালয়ে সহায়ক পেশাজীবি (সিএন্ডএফ এজেন্ট, শিপিং, ফ্রেইট ফরওয়ার্ডিং, ট্যাক্স ল’ইয়ার্স, আইসিএমএবি, আইসিএবি, ইনস্টিটিউট অব চার্টার্ড সেক্রেটারিয়েটস) সংগঠনের সাথে প্রাক-বাজেট আলোচনায় তিনি এই সহযোগিতা কামনা করেন।

নজিবুর রহমান বলেন, ‘নতুন আইনে ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পকে বেশি সুবিধা দিতে আমরা কাজ করছি। মাঠ পর্যায়ের কর্মকর্তাদের করসেবা বাড়ানোর জন্য উদ্ধুদ্ধ করছি। নতুন মূসক আইনে জনগণের আশা আকাঙ্খার প্রতিফলন হবে। নতুন আইন নিয়ে আমরা আলোচনার দরজাও উন্মুক্ত রেখেছি।’

নতুন ভ্যাট আইনে বিদ্যুতের দাম বাড়বে না উল্লেখ করে তিনি আবারো বলেন, ‘আমরা হিসাব করে দেখেছি নতুন আইনে বিদ্যুতের দাম বাড়বে না,বরং নতুন আইন বাস্তবায়ন হলে বিভিন্ন ধরনের নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যে মূল্য সুবিধা পাওয়া যাবে।’

নজিবুর রহমান বলেন, সাধারণ মানুষের জীবন স্পর্শ করে,এমন সব বিষয়ে নতুন আইনে কর অব্যাহতি দেয়া আছে। এর মধ্যে জরুরী ওষুধ ও খাদ্যসামগ্রী ছাড়াও অনেক নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য রয়েছে। অনেক শিল্প পণ্য আমদানি-রফতানিতে শুণ্য শুল্ক হারে সুবিধা দেয়া হয়েছে।

উল্লেখ্য, এনবিআর মনে করছে নতুন আইন বাস্তবায়ন হলে ১৫ থেকে ২০ শতাংশ মূসক আদায় বেড়ে যাবে। এই আইনে রাজস্ব আহরণ বাড়ানোর পাশাপাশি কর পরিশোধে করদাতাদের হয়রানি এড়াতে অনলাইনে কর পরিশোধ ব্যবস্থা রাখা হয়েছে।

সভায় এনবিআর সদস্য ব্যারিস্টার জাহাঙ্গীর হোসেন,পারভেজ ইকবাল ও মো. লুৎফর রহমান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

SHARE THIS

Author:

Etiam at libero iaculis, mollis justo non, blandit augue. Vestibulum sit amet sodales est, a lacinia ex. Suspendisse vel enim sagittis, volutpat sem eget, condimentum sem.

0 coment rios: