৩০ নভেম্বর, ২০১৬

‘আইএস তৈরি করেছে মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থা ও সৌদি’!


ইসলামিক স্টেট তৈরি করেছে মার্কিন কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা সিআইএ এবং সৌদি আরব। সম্প্রতি এমনটাই চাঞ্চল্যকর দাবি করেছেন তদন্তকারী ওয়েবসাইট উইকিলিকসের প্রতিষ্ঠাতা জুলিয়ান অ্যাসাঞ্জ। পাঁচ লাখের বেশি তথ্য প্রকাশের বার্ষিকী উপলক্ষে এক অনুষ্ঠানে সম্প্রতি এমনটাই জানিয়েছেন অ্যাসাঞ্জ। তিনি বলেন, বেশকিছু ঘটনার পরম্পরায় মধ্যপ্রাচ্যে আইএসের এত বাড়বাড়ন্ত হয়েছে।

অ্যাসাঞ্জ বলেন, সোভিয়েত বাহিনীর বিরুদ্ধে আফগান গেরিলাদের জন্য কয়েকশ কোটি ডলারের অস্ত্র দেওয়ার ঘটনা ছিল এর প্রথম পদক্ষেপ। এই ঘটনা আল-কায়েদা সৃষ্টির প্রেক্ষাপট তৈরি করেছে এবং পরবর্তীতে ২০০১ সালের ১১ সেপ্টেম্বরের হামলার অজুহাতে আমেরিকা সামরিক আগ্রাসন চালিয়েছে ইরাক ও আফগানিস্তানে। দশকব্যাপী এই যুদ্ধের শেষ পর্যায়ে আদর্শগত, অর্থনৈতিক ও ভৌগোলিক বিষয়ের ওপর ভিত্তি করে তৈরি হয় ইসলামিক স্টেট। এর আগে ফাঁস হওয়া তথ্যে উইকিলিকস বলেছিল, মার্কিন গোয়েন্দা আধিকারিকরা কয়েক বছর আগেই জানতে পেরেছেন যে, বিভিন্ন রকমের জঙ্গি গোষ্ঠী মধ্যপ্রাচ্যে কথিত খেলাফত কায়েম করতে চাইছে।

সিরিয়ায় প্রেসিডেন্ট বাশার আল-আসাদকে ক্ষমতাচ্যুত করার জন্য আইএস জঙ্গিদের সৌদি আরব প্রকাশ্যে অর্থ ও অস্ত্র সাহায়তা দিচ্ছে। অন্যদিকে, সিআইএ সিরিয়ার কথিত মধ্যপন্থি জঙ্গিদেরকেও অস্ত্র ও প্রশিক্ষণ দিচ্ছে। সব মিলিয়ে একপ্রকাশ ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে পরিস্থিতি।

SHARE THIS

Author:

Etiam at libero iaculis, mollis justo non, blandit augue. Vestibulum sit amet sodales est, a lacinia ex. Suspendisse vel enim sagittis, volutpat sem eget, condimentum sem.

0 coment rios: