৩০ জুলাই, ২০১৫

ত্বক হোক সুন্দর ও সতেজ

সবাই চায় তার ত্বক যেন সুস্থ-সুন্দর থাকে সবসময়। যদিও মানুষের মধ্যে একটা প্রচলিত ধারণা রয়েছে যে, সুস্থ ও সুন্দর ত্বক অর্জন করা খুবই কঠিন। মনে রাখতে হবে, ঝরঝরে ও তরতাজা ত্বকে যেকোনো সাজই সুন্দর দেখায়। ত্বক সুন্দর ও সজীব রাখার পরামর্শ নিয়ে লিখেছেন নওশীন শর্মিলী
 
পর্যাপ্ত ঘুমের অভাবে তৈরি হওয়া ফ্যাকাশে ত্বক কারোই কাম্য নয়। আপনার ত্বক এমনকি পুরো শরীরের প্রয়োজন প্রতিরাতে গড়ে ৮ ঘণ্টা ঘুম। তাই সুস্থ-সুন্দর থাকতে একটু কষ্ট হলেও রাত জেগে টেলিভিশন না দেখে বা অন্য কাজে নিজেকে ব্যস্ত না রেখে চেষ্টা করুন একটা ভালো ঘুম দেওয়ার। প্রতিদিন সাবান ব্যবহারে আপনার ত্বক রুক্ষ হয়ে যেতে পারে। তাই একটি ভালো ব্র্যান্ডের ময়েশ্চারাইজার ক্রিম বা লোশন ব্যবহার করুন, যা আপনার ত্বককে রুক্ষতা থেকে বাঁচিয়ে রাখবে। প্রতিদিন গোসলের পর মনে করে লোশন লাগান, এতে আপনার ত্বক ভালো থাকবে। যদিও আপনি এখন আর ছোট নন তবুও আপনার শরীরের পর্যায়ক্রমিক বৃদ্ধির জন্য ভিটামিন এখনও জরুরি। প্রতিটি মানুষেরই প্রচুর পরিমাণে ভিটামিনযুক্ত খাবার খাওয়া উচিত। ভিটামিন এ, বি, সি এবং ই ত্বককে টানটান রাখতে সাহায্য করবে আর জিঙ্ক ত্বককে বিকিরণ থেকে রক্ষা করবে। অনেকেই হয়তো জানেন না ত্বকের ক্যান্সার খুবই প্রচলিত একটি নিরাময়ক রোগ। প্রতিদিন সানস্ক্রিন লোশন ব্যবহার ইউভিএ বা ইউভিবি রশ্মির বিরুদ্ধে উল্লেখযোগ্যভাবে আপনার ঝুঁকি কমায়। রঙের বদল ও অস্বাভাবিক আঁচিল ত্বকের ক্যান্সারের প্রাথমিক লক্ষণ এবং এটা নিজের সতর্কতার মাধ্যমে খুব সহজেই নিরাময় করা সম্ভব। তাই আপনার একটু সচেতনতাই আপনাকে দিতে পারে সুস্থ-সুন্দর ত্বকের সাথে সাথে একটি পরিপূর্ণ জীবন।
 
ঘরে বসেই কীভাবে আপনার ত্বকের পরিচর্যা করবেন, তার পরামর্শ নিচে দেওয়া হলো।
 
 
 
ড্রাই স্কিনের জন্য
 
 
 
হানিপ্যাক
 
ডিমের কুসুমের সঙ্গে আধ চামচ মধু, মিল্ক পাউডার ১ চা চামচ মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করে নিন। ২০ মিনিট লাগিয়ে ধুয়ে ফেলুন।
 
১ চা চামচ অরেঞ্জ জুসের সঙ্গে মধু মিশিয়ে নিন। ত্বক নরম রাখতে এর কোনো জুড়ি নেই।
 
 
 
ক্যারট মাস্ক
 
গাজর, বাঁধাকপি ও ওলকপি একসঙ্গে ফুটিয়ে নিন। সিদ্ধ হলে নামিয়ে ঠাণ্ডা করে ছেঁকে নিন। মুখ ধোয়ার জন্য এই পানি ব্যবহার করতে পারেন। বাকি ভেজিটেবল ম্যাশ করে নিন। ফেস মাস্ক হিসেবে ব্যবহার করুন। গাজরে রয়েছে ভিটামিন এ, বাঁধাকপিতে প্রচুর মিনারেল রয়েছে। ওলকপি পাওয়ারফুল ক্লিনজার। শুষ্ক ত্বকের জন্য এই কম্বিনেশন খুবই উপকারী। গাজর কুরে নিন। তারপর কুরানো গাজর মুখে ২০ মিনিট লাগিয়ে রাখুন। তারপর পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন।
 
 
 
অয়েলি স্কিনের জন্য
 
 
 
হানিপ্যাক
 
১ চামচ মধুর সঙ্গে ১ চামচ দই আর সামান্য হলুদ মিশিয়ে ফেলুন। তৈলাক্ত ত্বকের জন্যে এটা দারুণ।
 
ডিমের সাদা অংশের সঙ্গে আধ চা চামচ মধু, ১ চা চামচ লেবুর রস, মুলতানি মাটি মিশিয়ে ঘন পেস্ট তৈরি করুন। ২০ মিনিট লাগিয়ে রেখে ধুয়ে ফেলুন।
 
 
 
 
 
সেনসিটিভ ত্বকের জন্য
 
ওটমিল
 
ত্বকের তৈলাক্ততা দূর করার জন্য চাই আধ কাপ সিদ্ধ ওটমিল, ১টা ডিমের সাদা অংশ, ১ চা চামচ লেবুর রস এবং ম্যাশড আপেল আধা কাপ। এসব উপাদান মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করে মুখে ১৫ মিনিট লাগিয়ে রাখুন। কিছুক্ষণ পর পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন।
 
 
 
মডেল রথি মেকআপ মিউনি’স ব্রাইডাল

SHARE THIS

Author:

Etiam at libero iaculis, mollis justo non, blandit augue. Vestibulum sit amet sodales est, a lacinia ex. Suspendisse vel enim sagittis, volutpat sem eget, condimentum sem.

0 coment rios: